দীর্ঘদিন প্রেমের পরও বিয়েতে রাজি নয় সঙ্গী, বিয়ে পর্যন্ত গড়ানোর উপায়

প্রকাশিত: ৮:০২ পূর্বাহ্ণ, জুন ৯, ২০২১
দীর্ঘদিন প্রেমের পরও বিয়েতে রাজি নয়, জানুন সঙ্গীকে বশে আনার উপায়

দীর্ঘদিনের সম্পর্ক। কয়েক মাস থেকে বছর পেরিয়ে কয়েক বছর পর্যন্ত পারও হয়েছে। কিন্তু এমন সময়েই বিপত্তি। বিয়ের পর্যায় গিয়েও যেন যাচ্ছে না। এমনটা হলেও বেশ সমস্যা। এক্ষেত্রে সঙ্গীর পরিবার থেকে সমস্যার আগেই দেখা যায় সঙ্গীই রাজি হচ্ছে না। বিয়ের বিষয় তুলতেই অন্য প্রসঙ্গ তুলছে সে। দীর্ঘদিন সম্পর্কের পর যদি এমনটা হয় তাহলে তো সমস্যা। এবার তাহলে দীর্ঘদিনের সম্পর্ককে বিয়ে পর্যন্ত গড়ানোর উপায় তুলে ধরা হলো-

প্রথমেই বিপরীত মানুষকে বুঝতে হবে। কেন সে দীর্ঘদিন সম্পর্ক থাকার পর হঠাৎ করেই এমন করছে এটা বোঝার চেষ্টা করতে হবে। তবে ভুল করেও এই সময় বিপরীত মানুষটির প্রতি কোনো সন্দেহ প্রকাশ করা যাবে না। তাই সঙ্গীর কাছ থেকেই কারণ জানার চেষ্টা করুন। প্রয়োজনে একান্তে তার সঙ্গে কথা বলে সমস্যার মূল পর্যন্ত পৌঁছান।

বিপরীত মানুষকে বোঝানোর চেষ্টা করতে হবে যে, দীর্ঘদিন প্রেম-ভালোবাসার সম্পর্ক যদি বিয়ে পর্যন্ত না যায় তাহলে সেই সম্পর্কই পরিণত হয় না। এতে বরং জীবনে কালো একটি অধ্যায়ের রচনা হয়। দুই পরিবার থেকে কি চাচ্ছে- এসব নিয়ে দুজন পরস্পর আলোচনা করুন এবং দুজন পরিবারের জন্য সেভাবে নিজেদের গড়ে তুলুন। সংসারের বিষয়ে যে অনেক কিছু পরিকল্পনা করেছন এ বিষয়টিও জানিয়ে ফেলুন সঙ্গীকে।

বিয়ের পর সাংসারিক জীবনের সুবিধা বা একসঙ্গে থাকার সুফলগুলো সঙ্গীকে স্পষ্ট ভাষায় সুন্দরভাবে বোঝানোর চেষ্টা করুন। প্রয়োজনে বিশ্বস্ত কোনো বন্ধু-বান্ধব বা ভাই-বোনের সহায়তা নিন।

কিছুটা সময় দেয়ার পরও যদি বিপরীত মানুষটি ‘বিয়ে করব না’ সিদ্ধান্ত থেকে সরে না আসে তাহলে বুঝে নিতে হবে তার এই সম্পর্কের প্রতি কোনো আগ্রহই নেই। এমনটা হলে তার সঙ্গে সুন্দরভাবে কথা বলে পারস্পরিকভাবে সম্পর্কের ইতি টেনে ফেলুন। কেননা, যে সম্পর্ক পরিণত করতে চায় না তাকে হয়তো আপনি জোর করে বিয়ে করতে পারবেন, কিন্তু এতে কী কখনো সাংসারিক জীবনে সুখি হতে পারবেন? তাই বিয়ের আগে ভেবে-চিন্তে সিদ্ধান্ত নিন।